ব্রেকিং নিউজ

মেহবুবা মুফতি কাশ্মীরের প্রথম মহিলা মুখ্যমন্ত্রী

mahbuba-thebdexpress

দ্য বিডি এক্সপ্রেস.কমঃ

ভারতের জম্মু ও কাশ্মীরে জোট সরকার গঠন করতে যাচ্ছে ক্ষমতাসীন বিজেপি ও পিডিপি। শনিবার রাজ্যের গভর্ণর এন এন ভোরার সাথে সাক্ষাত করেন পিডিপি চেয়ারম্যান মেহবুবা মুফতি ও বিজেপি নেতা নির্মল সিং।
বৈঠকের পর উভয় নেতা সাংবাদিকদের বলেন, গভর্ণরের কাছে সরকার গঠনের প্রস্তাব উত্থাপনের পর এরইমধ্যে জম্মু ও কাশ্মীরের সরকার গঠনের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। সূত্র জানায়, বিজেপির সমর্থন পাওয়ার পর পিডিপির চেয়ারম্যান মুফতি মেহবুবাই হচ্ছেন কাশ্মীরের প্রথম মহিলা মুখ্যমন্ত্রী।
দীর্ঘ দুই মাস আলোচনার পর শুক্রবার জোট সরকার গঠনে উভয় দলের মধ্যে একটি সমঝোতা চুক্তি হয়।এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিজেপি নেতা সাট শর্মা বলেন, সরকার গঠনে উভয় দলের নেতারা থাকছেন। মাস দুয়েকের টালবাহানার অবসান। শুক্রবার পিডিপির পরিষদীয় দলের বৈঠকে তাঁকে আনুষ্ঠানিকভাবে মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে নির্বাচিত করেন বিধায়করা।
গত জানুয়ারি মাসে প্রয়াত হন জম্মু ও কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী মুফতি মহম্মদ সাঈদ। বাবার মৃত্যুর পর মেহবুবা মুফতি মুখ্যমন্ত্রী হতে চাননি। তাঁর অভিযোগ ছিল, জোট সরকারের মৌলিক চুক্তিগুলি লঙ্ঘন করছে বিজেপি। সেই অভিযোগ অবশ্য অস্বীকার করে বিজেপি। তারপর থেকে জম্মু ও কাশ্মীরে সরকার গঠন নিয়ে বিজেপি ও পিডিপির মধ্যে টালবাহানা চলছিল। ওই রাজ্যে বর্তমানে রাজ্যপালের শাসন জারি রয়েছে।
জম্মু ও কাশ্মীরে নতুন করে ফের নির্বাচন হবে কি না, তা নিয়ে জল্পনা শুরু হয়। তার মধ্যেই গত সপ্তাহে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে দিল্লিতে বৈঠক করেন মেহবুবা মুফতি। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ইতিবাচক বৈঠক হয়েছে বলে তিনি জানান। তারপরই দুটি দলের অচলাবস্থা কাটে বলে রাজনৈতিক মহল মনে করছে।
পিডিপি-বিজেপি জোট সরকারের মুখ্যমন্ত্রী মুফতি মুহম্মদ সাঈদের মৃত্যু হয় গত ৭ জানুয়ারি। মুফতি-কন্যা মেহবুবা মুখ্যমন্ত্রিত্বের দায়িত্ব নিতে অস্বীকৃতি জানানোয় বিধানসভা জিইয়ে রেখে রাজ্যে রাজ্যপালের শাসন জারি করা হয়। এরপর থেকেই অচলাবস্থার শুরু। বিজেপির সঙ্গে জোট বেঁধে সরকার গঠনে মেহবুবার ঘোর আপত্তি ছিল। কিন্তু প্রয়াত বাবার ইচ্ছা ও চাহিদার বিরোধিতা তিনি করতে পারেননি। সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

Comments

comments