ব্রেকিং নিউজ

টিন-এজার তরুন-তরুনিদের স্বাস্থ্য রক্ষায় যা করণীয়

টিন এজার তরুণ-তরুণীদের মধ্যে পড়াশোনায় অমনোযোগ? অতিরিক্ত মোটা হয়ে যাচ্ছে অথবা অসম্ভব জোরে গান শোনে? কিংবা শুধু মিষ্টি পানীয় পান করে বা পরিবেশের সাথে খাপ খাওয়াতে পারছে না? গবেষণার মধ্য দিয়ে এ সব কিছুরই সমাধান দিয়েছেন গবেষকরা৷   

জোরে গান শোনায় কানের ক্ষতিঃ  জোরে গান শোনার কারণে সারা বিশ্বে ১১০ কোটি টিন-এজার এবং প্রাপ্তবয়স্ক নিয়মিত কানের সমস্যায় ভোগে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছে এ তথ্য৷ তারা জানায়, যত জোরে গানের শব্দ হবে, তত তাড়াতাড়ি কানের ক্ষতি হবে৷ ‘ডিসকো’ বা ‘পাব’-এ গেলে কিছুক্ষণ পর শব্দ শোনা থেকে বিশ্রাম নিতে হবে বা কানে তুলো দিয়ে রাখতে হবে৷ এছাড়া দিনে ১ ঘণ্টার বেশি কখনই কানে ‘ইয়ারপ্লাগ’ দিয়ে গান শোনা কখনোই উচিত নয়, পরামর্শ ডাব্লিউএইচও-র৷

 দাঁড়িয়ে পড়লে মনোযোগ বেশি হয়ঃ

পড়াশোনার চাপ যাদের বেশি তারা যদি মাঝে মাঝে দাঁড়িয়ে পড়াশোনা বা ক্লাস করে, তাহলে তা বেশিক্ষণ মনে থাকে৷ এ তথ্য পাওয়া গেছে যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসের একটি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের করা সমীক্ষার ফলাফল থেকে৷ সমীক্ষায় দেখা গেছে, প্রাইমারি স্কুলের ৩০০ ছাত্র-ছাত্রীর মধ্যে যারা দাঁড়িয়ে থেকে ক্লাস করেছে, তাদের মনোযোগ যারা বসে ক্লাসে অংশ নিয়েছে তাদের চেয়ে শতকরা ১২ ভাগ বেশি ছিল৷

 খেলাধুলা শিশুদের জীবন সহজ করেঃ

যে সমস্ত শিশু নিয়মিত খেলাধুলা করে তারা অন্যান্যদের তুলনায় হাসিখুশি থাকে এবং স্কুলেও ভালো ফল করে এবং অন্য শিশুদের সাথেও সহজভাবে মেলামেশা করতে পারে৷গবেষকরা মনে করেন, শারীরিক পরিশ্রম, অর্থাৎ খেলাধুলা বা ব্যায়াম শিশুদের যে কোনো ‘স্ট্রেস’ বা মানসিক চাপ থেকে সহজে মুক্তি দিতে সাহায্য করে৷ এর কারণ, খেলাধুলা বা ব্যায়াম করলে শরীরে হরমনের প্রভাব এবং প্রকাশ কিছুটা অন্যভাবে ঘটে৷

 পরিমিত ঘুম ওজন কমায়ঃ

অ্যামেরিকার শিকাগো বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের দেয়া তথ্য থেকে জানা গেছে, কারো সাত থেকে আট ঘণ্টার কম ঘুম হলে, তার খাওয়ায় রুচি বেড়ে যায়, অর্থাৎ তুলনামূলকভাবে তখন বেশি খায় সে৷ ঘুম কম হলে শরীরের পরিপাকক্রিয়া ক্যালোরি খরচে বাধা দেয়৷ তাই অতিরিক্ত ওজনের টিন-এজারদের ওজন কমানোর জন্য যথেষ্ট ঘুম প্রয়োজন৷

 ভ্রমণ আত্মবিশ্বাস বাড়ায়ঃ

জার্মানির ম্যুনস্টার বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের দেওয়া এক তথ্য থেকে জানা গেছে যে, ‘ছাত্র-ছাত্রী বিনিময় কর্মসূচি’-র মাধ্যমে যারা এক বছরের জন্য বিদেশে গিয়েছিল, বিদেশ ভ্রমণের অভিজ্ঞতা তাদের আত্মবিশ্বাসী, আত্মসম্মানবোধ এবং ইতিবাচক চিন্তাশক্তি বাড়িয়ে দিয়েছে, যারা যায়নি তাদের তুলনায়৷ এই সমীক্ষাটি করা হয়েছিল ৮০০ টিন-এজারদের মধ্যে, যাদের গড় বয়স ১৬৷ পশ্চিমা বিশ্বের অনেক দেশেই এ রকম কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়৷

 মিষ্টি পানীয় হতে পারে মারাত্মক, তাই সাবধান!

সারা বিশ্বে প্রতিবছর শুধুমাত্র অতিরিক্ত চিনি দেওয়া মিষ্টি পানীয় পান করে মারা যায় অন্তত ১৮৪,০০০ মানুষ৷ ‘সার্কুলেশন’ নামের একটি মার্কিন পক্রিকায় প্রকাশিত বস্টন বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের করা এক গবেষণা থেকে জানা গেছে এ তথ্য৷ গবেষণাটি করা হয়েছিল ১৮৭টি দেশের ৬১০,০০০ জনেরও বেশি মানুষের মধ্যে৷

Comments

comments