ব্রেকিং নিউজ

রাবির চার ছাত্রলীগ নেতার বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহার

রাজশাহী প্রতিনিধি : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের চার নেতার উপর থেকে বহিষ্কারাদেশ প্রতাহ্যারকে কেন্দ্র করে  রাবি ছাত্রলীগে এক নতুন নাটকীয়তা শুরু হয়েছে।

সোমবার বেলা সোয়া ৪টার দিকে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদের সাবেক দফতর সম্পাদক শেখ রাসেল বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের ঐই চার নেতার উপর থেকে বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহারের বিষয়টি মোবাইলে নিশ্চিত করেন।

ছাত্রলীগের ঐই চার নেতা হলেন, বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি রানা চৌধুরী, মেহেদী হাসান, যুগ্ম সম্পাদক মাহবুবুর রহমান পলাশ ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক মুস্তাকিম বিল্লাহ।

কিন্তু এ ব্যাপারে ছাত্রলীগের নবনির্বাচিত সভাপতির সাথে মোবাইলে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, “আমরা কোন বহিস্কৃত নেতার উপর থেকে বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহর করিনি। তিনি আরও বলেন, “কোন বহিস্কৃত নেতা বা সন্ত্রাসীদের স্থান ছাত্রলীগে নেই।”

শেখ রাসেলের সাথে মোবাইলে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘ওই চার নেতার বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহারের জন্য রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক স্বাক্ষরিত সুপারিশ আমাদের হাতে আসে। সবকিছু যাচাই-বাছাই করে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ ওই চার নেতার বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহার করেছে।’

কিন্তু কেন এত দেরীতে কেন তাদের এই বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহারের ঘটনা জানানো হল। এটা কেনো সম্মেলনের পর জানানো হল এমন প্রশ্নের উত্তরে রাসেল বলেন, সম্মেলনের সময় তাড়াহুড়ার মধ্যে এভাবে কাউকে জানানো হয়নি। তাদের চারজনকে সম্মেলনের দু-একদিন আগে ছাত্রলীগে অন্তর্ভূক্তি করা হয়েছে।

কিন্তু তাদের বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহারের বিষয়ে কেন কোন বিজ্ঞপ্তি জানানো হয়নি এ ব্যাপারে শেখ রাসেলের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, “তারা চারজন যেহেতু সর্বশেষ সম্মেলনে ভোট প্রদান করেছে সেহেতু তাদেরকে আর বহিস্কৃত বলা যায়না। অবশ্যই তাদেরকে ছাত্রলীগে পুনরায় অন্তর্ভূক্তি করা হয়েছে।”

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালের ১৩ মে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের মাস্টার্সের একটি পরীক্ষা বন্ধ করে কক্ষ ভাংচুরসহ শিক্ষকদের লাঞ্ছিত করার অভিযোগে ওই চার নেতাকে সংগঠন থেকে বহিষ্কার করা হয়। #

Comments

comments