ব্রেকিং নিউজ

সেনানিবাসেই থাকবে সেনাবাহিনীঃ সিইসি

image_11723প্রতিবেদকঃ সেনাবাহিনী সেনানিবাসেই থাকবে' উল্লেখ করে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী রকিবউদ্দিন আহমদ বলেছেন, "কারণ সেনানিবাস হচ্ছে ঢাকার মাঝখানে। তাদের তো এক জায়গায় থাকতে হবে? আমরা মনে করেছি, ক্যান্টনমেন্ট তাদের জন্য 'বেস্ট পজিশন'।" সিইসি বলেন, "সেনাবাহিনী সবসময় রিজার্ভ ও স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে থাকে। এবারও তাই থাকবে।" বৃহস্পতিবার রাতে সিটি নির্বাচনে সেনা মোতায়েন নিয়ে ব্যাখ্যা দিতে তিনি এ কথা জানান। রকিবউদ্দিন বলেন, "রিটার্নিং অফিসাররা ডাকামাত্রই তারা চলে আসবেন।

প্রথম দিগে সেনা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত নিয়ে কমিশন দৃঢ়তার পরিচয় দিলেও কিন্তু সেই দৃঢ়তা ২৪ ঘণ্টাও টেকেনি। কমিশন মঙ্গলবার চার দিনের জন্য সেনা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত নিলেও বৃহস্পতিবার রাতে বলেছে, সেনাবাহিনী সেনানিবাসেই থাকবে। রিটার্নিং কর্মকর্তারা ডাকলে তারা বাইরে আসবে।
জানতে চাইলে প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজী রকিব উদ্দীন আহমদ সাংবাদিকদের বলেন, ‘সেনাবাহিনী কোথায় থাকবে সেটাই শুধু উল্লেখ করে দেওয়া হয়েছে। কাজ করতে গেলে অনেক ভুল-ত্রুটি হয়ে থাকে, পরে সেগুলো শুদ্ধ করা হয়। চিঠিটা মূলত প্রতিস্থাপিত হয়েছে।’ ম্যাজিস্ট্রেটও তাদের সাথে থাকবে। তাই কোনো সমস্যা হবে না।"

এক দিনের ব্যবধানে চিঠির সংশোধনের বিষয়ে রকিবউদ্দিন বলেন, "সেনাবাহিনী কোথায় থাকবে সেটা উল্লেখ করে দেওয়া হয়েছে। মূলত ওই কারণে চিঠি দিয়েছি। কাজ করতে গেলে অনেক ভুল-ত্রুটি হয়ে থাকে, পরে সেগুলো শুদ্ধ করা হয়। চিঠিটা মূলত প্রতিস্থাপিত হয়েছে।" ২১ এপ্রিল তিন সিটি করপোরেশন নির্বাচনে স্ট্রাইকিং ও রিজার্ভ ফোর্স হিসেবে সেনাবাহিনী মোতায়নের সিদ্ধান্ত নেয় ইসি। ২২ এপ্রিল তাদের ক্যান্টনমেন্টের মধ্যেই ‘রিজার্ভ ফোর্স’ হিসেবে রাখতে পুনরায় সশস্ত্র বাহিনী বিভাগকে চিঠি দেয় ইসি।

Comments

comments