ব্রেকিং নিউজ

জাতিসঙ্ঘে বাংলাদেশের শান্তি সংস্কৃতি প্রস্তাব গৃহীত

934a2196f3d45b32ac678770783194c0_XLবিডি এক্সপ্রেসঃ জাতিসঙ্ঘের সাধারণ পরিষদে বাংলাদেশের ‘শান্তির সংস্কৃতি’ প্রস্তাবনা সর্ব সম্মতিক্রমে প্রস্তাব আকারে গৃহীত হয়েছে। নিউইয়র্কের স্থানীয় সময় ১৫ ডিসেম্বর সাধারণ পরিষদের এক সভায় উপস্থিত সকল সদস্য রাষ্ট্রের সমর্থনে এটি প্রস্তাব আকারে গৃহীত হয়। এ বছর ৯৭টি দেশ বাংলাদেশের সঙ্গে এই প্রস্তাবের কো-স্পন্সর ছিল। ২৫টি দেশ এই প্রস্তাবের উপর বক্তব্য দিয়েছে। প্রস্তাব পাশ হওয়ার পর তাৎক্ষণিক এক প্রতিক্রিয়ায় জাতিসঙ্ঘে বাংলাদেশ মিশনের স্থায়ী প্রতিনিধি বলেন, এই প্রস্তাবের মূল শ্লোগান হচ্ছে- মানুষের অসহিষ্ণুতা/ঘৃণা কমালে স্থায়ী শান্তি আসবে। এ বছরই প্রথম অনেক ইউরোপীয় দেশ কো-স্পন্সর করেছে। এবারের প্রস্তাবে যুব শক্তি ও নারীর জন্য কার্যপ্রক্রিয়া ও আচরণ নির্দেশনা যোগ হয়েছে। আগের মতোই এনজিও এন্ড সিভিল সোসাইটি সম্পর্কে নির্দেশনা ছিল। ড.এ.কে আব্দুল মোমেন বলেন, দেশের রাজনৈতিক টানা পোড়েনের মাঝে এবং গণ মাধ্যমের নেতিবাচক প্রচারের পরও বিশ্ব নেতৃবৃন্দের বিপুল সমর্থন এটাই প্রমাণ করে যে বাংলাদেশের নেতৃত্বের প্রতি বিশ্ববাসীর গভীর আ্স্থায় কোনো ফাটল ধরেনি এবং জাতীয় উন্নয়নে সকল মানুষকে সম্পৃক্ত করার জন্য ‘শান্তির সংস্কৃতি’র বিকল্প নেই। বিশ্ব নেতৃবৃন্দ বাংলাদেশের এই প্রস্তাবে একযোগে কাজ করার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেছেন। এই প্রস্তাবে বিশ্বের প্রতিটি মহাদেশের সমর্থন ছিল। বিগত বছরের তুলনায় এবার সমর্থন ছিল বিপুল সংখ্যক।

Comments

comments