সৌদি আরবে হজ কোটা বাড়ল আরও ১০ হাজার

প্রতিবেদক:

আগামীতে বাড়তি আরও ১০ হাজার বাংলাদেশি হজে যাওয়ার সুযোগ পাবেন। সৌদি আরব হজের কোটা বাড়ানোর এ ঘোষণা দিয়েছে।

বুধবার সকালে মক্কায় সৌদি সরকার ও ধর্ম মন্ত্রণালয়ের মধ্যে ২০২০ সালের হজ চুক্তির প্রথম বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে হজ কোটা বাড়ানোর বিষয়টি অনুমোদন করা হয়।

কোটা বাড়ানোর বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন মক্কার বাংলাদেশের হজ কাউন্সিলর মো. মাকসুদুর রহমান।

আগে যেখানে এক লাখ ২৭ হাজার ১৯৮ জন হজ পালনের সুযোগ পেয়ে আসছিলেন। কোটা বাড়ানোর ফলে সে সংখ্যা ১০ হাজার বেড়ে এখন দাঁড়াল  ১ লাখ ৩৭ হাজার ১৯১ জন ।  আগামী হজ থেকেই এই বর্ধিত কোটা বাস্তবায়িত হবে বলে জানা গেছে।

সৌদি কর্তৃপক্ষ জনসংখ্যার ভিত্তিতে বিভিন্ন দেশের হাজিদের সংখ্যা নির্ধারণ করে দেয়। এ বছর জনসংখ্যার চাহিদার ভিত্তিতে অতিরিক্ত ২০ হাজার বাংলাদেশির হজের অনুমোদন চাওয়া হয়েছিল। সেই দাবির প্রেক্ষিতে সৌদি কর্তৃপক্ষ ১০ হাজার জনের সংখ্যা বাড়ানোর এই অনুমোদন দেয়।

২০২০ সালের সৌদি-বাংলাদেশ হজচুক্তির উদ্দেশে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট শেখ মো. আব্দুল্লাহসহ ৫ সদস্যের প্রতিনিধি দল এখন সৌদি আরব রয়েছেন। গত রোববার সন্ধ্যায় সৌদি তারা সৌদি আরব পৌঁছান।

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট শেখ মো. আব্দুল্লাহ ছাড়াও প্রতিনিধি দলের বাকি ৪ সদস্য হলেন, ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আনিছুর রহমান, অতিরিক্ত সচিব এবিএম আমিন উল্লাহ নূরী, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মিজানুর রহমান, হজ্জ এজেন্সীজ এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (হাব) এর সভাপতি এম. শাহাদাত হোসাইন তসলিম।

বাংলাদেশ থেকে ২০২০ সালের হজ ফ্লাইট চালু হবে ২৫ জুন। আর চাঁদ দেখা সাপেক্ষে হজ অনুষ্ঠিত হবে ১ আগস্ট।

Comments

comments