ব্রেকিং নিউজ

মীরপুরে ১০ তলা থেকে পড়েও বেঁচে গেল ৬ বছরের শিশু


প্রতিবেদক :
 
নির্মাণাধীন ভবনের ১০তলা থেকে নিচে পড়েও অলৌকিকভাবে বেঁচে গেল রিমা নামে ৬ বছরের এক শিশু। আজ শনিবার বিকেলে রাজধানীর মিরপুর চিড়িয়াখানা রোডে মর্মান্তিক এ দুর্ঘটনা ঘটে।

গুরুতর আহত অবস্থায় শিশুটি ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক)হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।


রিমার বাবা মো.রিপন জানান, সপরিবারে তারা মিরপুরের নবাবের বাগ এলাকায় থাকেন। স্ত্রী রেশমী ও তিনি দিন মজুরেরে কাজ করেন। রিমা নবাবের বাগের বাসায় নানীর সঙ্গে থাকত। কিন্তু আজ  সকালে মা-বাবার সঙ্গে আসার বায়না ধরে শিশুটি। মেয়ের বায়না মানতে তাকে নিয়ে যান তারা। সকাল থেকেই চিড়িয়াখানা রোডের একটি ১২ তলা নির্মাণাধীন ভবন পরিষ্কারের কাজ করছিলেন রিমার মা-বাবা।

বিকেলে ভবনটির ১০ তলায় ওই দম্পতি কাজ করার সময় রিমা তাদের পাশেই খেলা করছিল। বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে হঠাৎ বিকট শব্দ পেয়ে রিপন পেছনে ফিরে দেখেন রিমা নেই। নিচে তাকিয়ে দেখেন মেয়েটি নিচে ময়লা আবর্জনার ওপর পড়ে আছে।

আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে প্রথমে স্থানীয় একটি হাসপাতালে নেওয়া হয়। অবস্থার অবনতি হলে সেখান থেকে সোহরাওয়ার্দী হাসপাতাল হয়ে রাত সাড়ে ৭টার দিকে ঢামেক হাসপাতালে নিয়ে যান ওই দম্পতি।

রিপন আরও জানান, রিমার চিকিৎসায় প্রচুর খরচ হবে বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন। মেয়ের চিকিৎসা ব্যয় কিভাবে মেটাবেন এই চিন্তায় এখন চোখে অন্ধকার দেখছেন তিনি। 


ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির উপপরিদর্শক (এসআই ) মো. বাচ্চু মিয়া জানান, আহত শিশুটির গ্রামের বাড়ি ভোলার তজিমউদ্দিনের সম্বোপুরে। রিমা প্রাণে বাঁচলেও তার অবস্থা ভালো নয় বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন বলে যোগ করেন তিনি।

Comments

comments