ব্রেকিং নিউজ

জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে সিরিজ পাকিস্তানের


 স্পোটর্স ডেস্ক : 
নিজেদের অস্তিত্ব রক্ষার লড়াইয়ে পাকিস্তানের বোলিংয়ের সামনে দাঁড়াতেই পারল না জিম্বাবুয়ে। ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো পাঁচ উইকেট নিয়ে স্বাগতিকদের গুঁড়িয়ে দিলেন ফাহিম আশরাফ। ফখর জামান ও বাবর আজম বাকিটা করলেন সহজেই। দুই ম্যাচ বাকি থাকতেই ওয়ানডে সিরিজ জিতে গেল সরফরাজ আহমেদের দল।
তৃতীয় ওয়ানডেতে ৯ উইকেটে জিতেছে পাকিস্তান। পাঁচ ম্যাচের সিরিজে অতিথিরা এগিয়ে ৩-০ ব্যবধানে।

বুলাওয়ায়োতে ফাহিমের ক্যারিয়ার সেরা বোলিংয়ে ৬৭ রানে গুটিয়ে যায় জিম্বাবুয়ে। ওয়ানডেতে পাকিস্তানের বিপক্ষে এটি দ্বিতীয় সর্বনিম্ন স্কোর। ১৯৮৬ সালে শারজায় নিউ জিল্যান্ডের করা ৬৪ সর্বনিম্ন।
২৪১ বল বাকি থাকতে ছোট লক্ষ্যে সহজেই পৌঁছে যায় পাকিস্তান। ওয়ানডেতে বল অব্যবহৃত থাকার দিক থেকে এটাই তাদের সবচেয়ে বড় জয়। আগের সেরা ছিল নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে ১৯৯০ সালে শারজায় ২০৬ বল বাকি থাকতে জিতেছিল পাকিস্তান।

কুইন্স স্পোর্টস ক্লাব মাঠে বুধবার টস জিতে ব্যাট করতে নেমে দ্বিতীয় ওভারে অভিষিক্ত প্রিন্স মাসভাউরেকে হারায় জিম্বাবুয়ে। প্রায় এক বছর পর ওয়ানডে খেলতে নেমে পরপর দুই ওভারে হ্যামিল্টন মাসাকাদজা ও তারিসাই মুসাকান্দাকে বিদায় করেন জুনায়েদ খান। সেখান থেকে আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি জিম্বাবুয়ে।

নতুন বলের দুই বোলার আক্রমণ থেকে সরলেও স্বস্তি ফেরেনি জিম্বাবুয়ে দলে। ছোট ক্যারিয়ারে এর আগে কখনও দুটির বেশি উইকেট না পাওয়া ফাহিম ভেঙে দেন স্বাগতিকদের মিডল অর্ডার। 

টানা তিন ওভারে পিটার মুর, চামু চিবাবা ও এল্টন চিগুম্বুরাকে বিদায় করেন ফাহিম। প্রায় দুই বছর পর ওয়ানডে খেলতে নামা ইয়াসির শাহ বোল্ড করেন টেন্ডাই চিশোরোকে। নিজের একমাত্র ওভারে উইকেটের দেখা পান আরেক লেগ স্পিনার শাদাব খানও।
১১ নম্বর ব্যাটসম্যান রিচার্ড এনগারাভাকে বোল্ড করে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রথমবারের মতো পাঁচ উইকেট নেন ফাহিম। তরুণ বোলিং অলরাউন্ডার ২২ রানে ৫ উইকেট নিয়ে জেতেন ম্যাচ সেরার পুরস্কার। বাঁহাতি পেসার জুনায়েদ ২ উইকেট নেন ৭ রানে।

ছোট লক্ষ্য তাড়ায় প্রথম বলেই ইমাম-উল-হকের উইকেট হারায় পাকিস্তান। এরপর আর কোনো ক্ষতি ছাড়াই দলকে জয়ের বন্দরে নিয়ে যান ফখর ও বাবর। আগের ম্যাচে সেঞ্চুরি করা ফখর ২৪ বলে ৮টি চারে করেন ৪৩। বাবর তিন চারে ১৯।

আগামী শুক্রবার একই ভেন্যুতে হবে চতুর্থ ওয়ানডে।

Comments

comments