চিনের বিরুদ্ধে একজোট হচ্ছে ভারত-আমেরিকা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

একদিকে যখন মাসুদ আজহারকে নিষিদ্ধ করার ক্ষেত্রে বারবার ভারতের পথে বাধা হয়ে দাঁড়াচ্ছে চিন, তার মধ্যে এবার চিনের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার উদ্যোগ নিল ভারত ও আমেরিকা। ডিসেম্বরেই সন্ত্রাসবাদ ইস্যুতে ভারত ও আমেরিকার মধ্যে হয়ে এক বিশেষ বৈঠক। আর সেখানে জয়েশ-ই-মহম্মদের মত জঙ্গি সংগঠনগুলিকে কিভাবে চাপে রাখা যায়, সেবিষয়েই আলোচনা হবে।

এরপর কোন জঙ্গিনেতাকে নিষিদ্ধ করা হবে, সেব্যাপারেও কথা হবে নয়াদিল্লি ও ওয়াশিংটনের প্রতিনিধিদের। মোদী ও ট্রাম্পের বৈঠকের সময়েই সন্ত্রাস মোকাবিলায় দুই দেশের একযোগে কাজ করা বার্তা স্পষ্ট দেওয়া হয়েছিল। যৌথ বিবৃতিতে বলা হয়েছিল আল-কায়েদা, আইএস, জয়েশ-ই-মহম্মদ, ডি-কোম্পানির মত সংগঠনগুলির বিরুদ্ধে একযোগে অভিযান চালানো হবে।

আরও পড়ুন: মাসুদ আজহারকে নিষিদ্ধ করতে প্রমাণ চাই? চিনকে একহাত নিল ভারত

মাসুদ আজহারের ভাই আব্দুল রাউফ আসগারকে নিষিদ্ধ করার কথাও ভাবা হচ্ছে। পাঠানকোট হামলায় এই জঙ্গিনেতার নাম জড়িয়েছিল। তবে চিন বারবার এইভাবে পাকিস্তানের সন্ত্রাস চাপা দেওয়ার চেষ্টা করলে বিশ্বের কাছে চিনকে সন্ত্রাসের সমর্থক হিসেবে বর্ণনা করাও কঠিন হবে না।

রাষ্ট্রপুঞ্জের ১২৬৭ কমিটি আজহারকে নিষিদ্ধ সন্ত্রাসবাদী ঘোষণার জন্য প্রস্তাব আনলেই বাধা হয়ে দাঁড়ায় চিন। ভারতের পঠানকোটে বায়ুসেনা ঘাঁটিতে হামলায় জড়িত থাকার জন্য মাসুদ আজহারকে সন্ত্রাসবাদী হিসেবে ঘোষণার জন্য রাষ্ট্রপুঞ্জে প্রস্তাব পেশ করেছে ভারত ও আমেরিকা সহ অন্যান্য দেশ। কিন্তু চিন ওই প্রস্তাবে বারংবার বাধা দিয়ে এসেছে। গত বছর ভারতের আবেদনে টেকনিক্যাল হোল্ড দেয় বেজিং।

Comments

comments