ব্রেকিং নিউজ

সেনাবাহিনীকে বিতর্কে জড়াতে চায় না বিএনপি

b5274প্রতিবেদক : ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের কারণেই অগণতান্ত্রিক শক্তির উত্থান হয়েছে, দাবি করে বিএনপি বলছে, রাষ্ট্রের সার্বভৌমত্ব রক্ষার অতন্দ্র প্রহরী সেনাবাহিনীকে কখনোই বিতর্কে জড়াতে চায় না তারা।

সোমবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে দলের যুগ্ম-মহাসচিব সালাহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘অগণতান্ত্রিক কোনো পন্থাকে বিএনপি কখনো স্বীকৃতি দেয়নি। বরং আওয়ামী লীগের স্বৈরতান্ত্রিক, একনায়কতান্ত্রিক ও নৈরাজ্যকর মানসিকতা ও কর্মকাণ্ডে কারণেই অগণতান্ত্রিক শক্তির উদয় হয়েছে প্রতিবার।’

তিনি বলেন, ‘দেশ ও জাতির গর্ব সেনাবাহিনী তাদের সুনাম অক্ষুণ্ন রেখে নিজেদের ওপর অর্পিত দায়িত্ব পালন করে আসছে। রাষ্ট্রের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব রক্ষার অতন্দ্র প্রহরী জাতীয় সেনাবাহিনীকে আমরা কখনোই বিতর্কে জড়াতে চাই না।’

বিএনপিকে গণতন্ত্রে বিশ্বাসী একটি ‘নিয়মতান্ত্রিক’ রাজনৈতিক দল হিসেবে অভিহিত করে দলটির এই নেতা বলেন, ‘নিয়মতান্ত্রিক আন্দোলনের সব দরজা বন্ধ, বাক ও ব্যক্তি স্বাধীনতা হরণ, নাগরিক ও রাজনৈতিক অধিকার বাজেয়াপ্ত, গণমাধ্যমের কণ্ঠরোধ ও নিয়ন্ত্রণ এবং বিচার ব্যবস্থা দলীয়করণ ও কুক্ষিগত করে শুধুমাত্র বন্দুকের নলের সাহায্যে সরকার প্রকারান্তরে অগণতান্ত্রিক শক্তি ও উগ্রবাদকে উৎসাহিত করছে। এর পরিণামে গণতন্ত্রের যাত্রা ব্যাহত হলে তার দায় সরকারকেই নিতে হবে।’

সালাহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘৯৬ সালে তত্ত্বাবধায়ক সরকার প্রতিষ্ঠার দাবি মেনে নিয়ে আমরা সংবিধান সংশোধন করেছিলাম। আওয়ামী লীগ ক্ষমতা দখলের জন্য সেই তত্ত্বাবধায়ক ব্যবস্থা বাতিল করে পঞ্চদশ সংশোধনীর মাধ্যমে ভবিষ্যত সংসদের ক্ষমতা হরণ করেছ, যা সরাসরি বেআইনি। কোনো সংবিধানই অপরিবর্তনযোগ্য নয়, জনগণের অভিপ্রায় অনুযায়ী সংবিধান সংশোধন বর্তমান সময়ের দাবি।’

বিবৃতিতে বিএনপির এই যুগ্ম-মহাসচিব অভিযোগ করে বলেন, ‘রোববার মিরপুর থানা পুলিশ মিরপুর-১০ নম্বর ওয়ার্ড শ্রমিক দলের সভাপতিকে থানায় ডেকে নিয়ে গুলি করে হত্যা করে ক্রসফায়ারের গল্প সাজিয়েছে। আরো তিনজনকে একইভাবে গুলি করে হত্যার পর গণপিটুনির কাহিনী সাজিয়েছে মিরপুর থানা পুলিশ।’

তিনি বলেন, ‘প্রত্যেকটি হত্যাকা-ের হিসাব রাখা হচ্ছে এবং সময়ের পরিবর্তন হলে এসবের জন্য দায়ী ব্যক্তিদের আদালতে উপযুক্ত বিচারের আওতায় আনা হবে।’

গণতন্ত্রের মুক্তির সংগ্রাম, ভোটাধিকার, মৌলিক মানবাধিকার ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে বিজয় অর্জিত না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন অব্যাহত থাকবে বলে জানান বিএনপির এই নেতা।

Comments

comments