ব্রেকিং নিউজ

বাগদাদির স্ত্রী-পুত্র আটক

UIFD-1417521195-620x330ইরাক ও সিরিয়ায় যুদ্ধরত জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএস) শীর্ষ নেতা ও তাদের তথাকথিত খিলাফতের খলিফা আবু বকর আল বাগদাদির স্ত্রী ও পুত্রকে লেবানন-সিরিয়ার সীমান্ত থেকে লেবাননি সেনাবাহিনী আটক করেছে।লেবাননের সেনাবাহিনী জানিয়েছে, ১০ দিন আগে সিরিয়া সীমান্ত দিয়ে লেবাননে প্রবেশ করেন বাগদাদির স্ত্রী-পুত্র। তাদের অবস্থান শনাক্ত করার পর সেনাগোয়েন্দারা দুজনকে একসঙ্গে আটক করেন।

মঙ্গলবার বিবিসি ও আলজাজিরা অনলাইনের খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

লেবাননের আল শরিফ পত্রিকা জানিয়েছে, বাগদাদির স্ত্রী ও পুত্রকে দেশটির প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

ইরাক ও সিরিয়ায় আইএস জঙ্গিদের দখল করা এলাকা নিয়ে ঘোষিত খিলাফত রাষ্ট্রের প্রধান হিসেবে গত জুনে বাগদাদির নাম ঘোষণা করা হয়।

গত মাসে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন বিমান হামলায় ইরাকের উত্তরাঞ্চলের শহর মসুলে বাগদাদি নিহত হয়েছেন বলে ইরাক ও যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে যে দাবি করা হয়েছিল, আইএস তা প্রত্যাখ্যান করে।

এর কিছু দিন পর বাগদাদির একটি অডিও বার্তা অনলাইনে প্রকাশ করা হয়। এতে আইএসের এলাকা ও কর্মপরিধি বাড়ানোর ঘোষণা দেন তিনি।

এদিকে বাগদাদির স্ত্রী-পুত্রের আটককে ‘মূল্যবান আটক’ হিসেবে অভিহিত করা হচ্ছে। বিদেশি গোয়েন্দাদের সাহায্যে লেবাননের সেনাগোয়েন্দারা তাদের আটক করেন। সিরিয়া থেকে লেবাননে প্রবেশ করেন তারা।

লেবাননের রাজধানী বৈরুতের আল ইয়ারজায় অবস্থিত প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের সদরদপ্তরে রাখা হয়েছে বাগদাদির স্ত্রী-পুত্রকে।

অন্যদিকে আইএস ও আল নুসর ফ্রন্ট নিয়ে বেকায়দা রয়েছে লেবানন। দেশটির ২০ সেনাকে ধরে নিয়ে গেছে এই দুই গোষ্ঠী। লেবাননের কারাগারে আটক জঙ্গিদের ছেড়ে না দিলে সেনাদের হত্যা করা হবে বলে হুমকি দিয়েছে আইএস ও নুসর ফ্রন্ট। বাগদাদির স্ত্রী-পুত্রকে আটক করার পর সেনাদের জীবন আরো হুমকির মধ্যে পড়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

Comments

comments